সুবিধাবঞ্চিত ও বন্যাকবলিত মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন দেশসেরা ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। বগুড়ার দুর্গম চড়ে প্রায় তিন শতাধিক মানুষের জন্যে সাহায্য সামগ্রী পাঠিয়েছেন বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক। মুশফিকুর রহিম ফাউন্ডেশন এর ব্যানারে অসহায় পরিবারের মধ্যে পৌঁছে দেওয়া হয় এসব সাহায্য সামগ্রী। 
বাংলাদেশে করোনা সংক্রমণ দেখা দেখা দেওয়ার পর থেকেই সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে ছিলেন মুশফিক। বড় পরিসরে মানুষের দেড় গোড়ায় সাহায্য পৌঁছে দেওয়ার জন্যে নিলামে তুলেছেন প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি করা শখের ব্যাট। এরপর একে একে ক্রীড়াবিদ থেকে শুরু করে অসহায় সম্বলহীন মানুষের কাছে পৌঁছে দিয়েছেন দুর্দিনের উপহার।
সম্প্রতি দেশের উত্তরবঙ্গে বাড়ছে বন্যার প্রকোপ। ঘরবাড়ি হারিয়ে খোলা আকাশের নিচে বসবাস করছেন হাজারো মানুষ। সেইসব মানুষের জন্যে সাহায্য নিয়ে পৌঁছে গেছেন মুশফিক। মুশফিক নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক অ্যাকাউন্ট এ লেখেন , ‘চিরকাল খেটে খাওয়া মানুষগুলো আজ বড্ড অসহায়। নিয়তি মেনে নেয়া সজল চোখে, আজ শুধুই সাহায্যের আকুতি। সব খবর জেনে সিদ্ধান্ত নেই, এই মানুষগুলোর কাছে আমার, সামান্য সম্মান মোড়ানো ভালোবাসা পৌছাতেই হবে। এটা আমার দায়িত্ব। এরপরের গল্পটা, শুধুই মুখে হাসি ফোটানোর গল্প।’
পাশাপাশি সুস্থ সুন্দরভাবে বন্টন কাজ সম্পন্ন করার জন্যে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির সদস্যের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন মুশফিক।
‘আলহামদুলিল্লাহ। মহান আল্লাহর অশেষ কৃপায়, গত দুইদিন আগে, বগুড়া জেলার সারিয়াকান্দি থানার বোহাইল ইউনিয়নের অন্তর্গত বোহাইল গ্রাম ও ধারাভার্ষা চরে, বন্যাদুর্গত ৩০০ পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণের মাধ্যমে আমার স্বপ্নের Mushfiqur Rahim Foundation আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে। ত্রাণ বিতরণের যাবতীয় কাজ সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্যে বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি বগুড়া ইউনিটের স্বেচ্ছাসেবকদের প্রতি ভালোবাসা ও সম্মান জানাচ্ছি।’