ডাঃ সাবরিনা

ডাঃ সাবরিনা কার কন্যা কার স্ত্রী এসব নিয়ে আমার কোন আগ্রহ নেই। তিনি দেখতে সুশ্রী কিংবা বিশ্রী সেসব নিয়েও আমি কৌতূহলী নই। তিনি গ্রেফতার হয়েছেন এবং তাকে তার অপরাধের জন্য সর্বোচ্চ শাস্তি পেতে হবে এর বাইরে আমার আর কোন কথা নেই।

গ্রেফতারের পূর্বে কিংবা পরে যারা তার ছবি ক্যারিকেচার করে তাকে নিয়ে ট্রল করে যাচ্ছেন কিংবা বিকৃত ভাবে উপস্থাপন করছেন প্রচলিত আইনেই সেটা এক ধরনের জঘন্য অপরাধ। একজন নারী অপরাধী বলে তার শরীরবৃত্তিয় নিয়ে যাচ্ছে তাই ভাবে উপস্থাপন করবেন অথবা যৌন সুড়সুড়ি দিবেন এটা কোন ভাবেই সমর্থন করিনা।

কই কোনদিন তো দেখলাম না দুর্ধর্ষ কোন পুরুষ অপরাধীর শরীর নিয়ে এরকম কোন নোংরা মানসিকতা প্রকাশ করতে। তাহলে একজন নারীর শরীর এরকম টার্গেট হবে কেন? শুধু নারী বলে! নারী পুরুষ হিসাবে আলাদা না করে অপরাধীকে অপরাধী হিসাবে কাউন্ট করাই যৌক্তিক বলে মনে করি। সেক্ষেত্রে শরীর বা লিঙ্গ কোন টার্গেট হতে পারেনা।

সাবরিনার ছবি নিয়ে করা নোংরামির শাস্তি কি? 1
ডাঃ সাবরিনা এমন আরও কিছু ছবি দিয়ে নোংরামি করা হয়য় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

আমি যতটা না ডাঃ সাবরিনার গ্রেফতারের খবরে আনন্দিত হয়েছি তার থেকে বেশী আহত হয়েছি তার কিংবা একজন নারীর শরীর এতটা বিশ্রী ভাবে উপস্থাপন করতে দেখে। সে অপরাধী। সে শাস্তি পাবে। কিন্তু আপনারা যারা দিনভর তাকে সোশ্যাল মিডিয়ায় বিকৃত ভাবে উপস্থাপন করে অপরাধ করলেন আপনাদের শাস্তি কি হবে?

লিখেছেন- ফজলুল হালিম রানা, সহযোগী অধ্যাপক এবং চেয়ারম্যান, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগ, জাহাঙ্গিরনগর বিশ্ববিদ্যালয়

আরও পড়ুন-