Zoom ফ্রি কলে বাসায় বসে মিটিং করতে খরচ হয়েছে এক কোটি আটত্রিশ লক্ষ টাকা! যে প্রতিষ্ঠান (বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগ- আইএমইডি) পাগলা খরচ দেখিয়ে ইতিমধ্যে বিল তুলে নিয়েছে তাদের কাজই ছিল বিভিন্ন সরকারী প্রোজেক্টে অতিরিক্ত বিল তদন্ত করে রাষ্ট্রকে সতর্ক করা যেন রাষ্ট্রীয় অর্থ অপচয় না হয়।

জুম ফ্রি সফটওয়ার। বিনামূল্যে ডাউনলোড করে যত ইচ্ছে মিটিং করা যায়। যদি কেউ কোম্পানির জন্য লাইন্সেন্সও ক্রয় করে সেটার দাম সর্বোচ্চ চৌদ্দশো টাকা যা দিয়ে পাঁচশ লোকের অফুরন্ত সময় ভিডিও কল করতে পারবে। (জুমের ওয়েবসাইটে সাবস্ক্রিপশন প্রাইজ লিখা আছে)

সেই মিটিং বাবদ খরচ হল কোটি টাকা। বাসায় বসে সবাই জুমে মিটিং করেছে কিন্তু খাবারের খরচ ধরা হয়েছে সাড়ে চার লক্ষ টাকা!

জুম অ্যাপে মিটিং করতে কলম, কলম রাখার ফোল্ডার, খাতা কিনতে মিটিং-এ অংশগ্রহণকারী প্রত্যেককে খরচ দেয়া হয়েছে এক লক্ষ পনেরো হাজার টাকা।

জুম ডাউনলোড, কলম খাতা কেনার জন্য আরেকটা প্রাইভেট সংস্থাকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে যারা কলম খাতা কিনেই বিল নিয়েছে প্রায় এগারো লক্ষ টাকা।

এভাবে জুম মিটিং আর খাবার দাবারে খরচ নেয়া হয়েছে সাতান্ন লক্ষ টাকা। এই কাজগুলো যারা করেছেন সকলেই উচ্চ শিক্ষিত, রাষ্ট্রের এক নম্বর অফিসার।

যদিও সব দোষ ঐ ইতালি প্রবাসীর যে বলছিল, পাক ইউ কান্ট্রি সিস্টেম।

লিখেছেন- রাফিউজ্জামান সিফাত

আরও পড়ুন-