মোহাম্মদ নাসিম ও শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহ’র মৃত্যু দেশ ও আওয়ামী লীগের জন্য বড় ক্ষতি বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

রবিবার (১৪ই জুন) দুপুরে, সংসদের বাজেট অধিবেশনে প্রয়াত মোহাম্মদ নাসিম ও শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহর মৃত্যুতে আনা শোক প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে এ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

জাতীয় সংসদের দিনের অধিবেশনের শুরুতেই সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও ১৪ দলের সমন্বয়ক মোহাম্মদ নাসিম এবং ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহর মৃত্যুতে শোক প্রস্তাব আনা হয়। প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে দুই বর্ষীয়ান আওয়ামী লীগ নেতার কথা স্মরণ করে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, তাদের মৃত্যু দেশ ও আওয়ামী লীগের জন্য বড় ক্ষতি।

শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহকে স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, অনেকটা নীরবে থেকেই দীর্ঘদিন কাজ করছিলেন তিনি। দেশের কওমি মাদ্রাসা শিক্ষার উন্নতির জন্য তার নিরলস কাজের কথা তুলে ধরেন সংসদ নেতা। আর পারিবারিক সম্পর্কের কথা উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী জানান, বিভিন্ন দলের সঙ্গে ঐক্য রক্ষায় খুব দক্ষ ছিলেন মোহাম্মদ নাসিম। করোনার বিরুদ্ধে যখন যুদ্ধ চলছে তখন দুই সহযোদ্ধাকে হারানো বেদনার। তারপরও সবাইকে সাহস নিয়ে সামনে এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী।

করোনার বিরুদ্ধে যখন যুদ্ধ চলছে তখন দুই সহযোদ্ধাকে হারানো বেদনার। তারপরও সবাইকে সাহস নিয়ে সামনে এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। দুই নেতার মৃত্যুতে সংসদে শোক প্রস্তাব গৃহীত হয়। এরপর এক মিনিট নীরবতা শেষে তাদের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনায় মোনাজাত করা হয়।

প্রসঙ্গত, শনিবার (১৩ই জুন) বেলা ১১টা ১০ মিনিটে রক্তচাপজনিত সমস্যায় মারা যান ৪ দলের সমন্বয়ক, আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। আর, শনিবার (১৩ই জুন) রাত পৌনে ১২টায় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে সিএমএইচে মৃত্যু হয় ধর্ম প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ’র। তবে, মৃত্যুর পর ধর্ম প্রতিমন্ত্রী দেহে করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে।