অধ্যাপক আনিসুজ্জামান

বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টা ৫৫ মিনিটে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচে) চিকিৎসাধীন অবস্থায় না ফেরার দেশে পারি জমান অধ্যাপক আনিসুজ্জামান। রাতে আনিসুজ্জামানের ছোট ভাই আক্তারুজ্জামান নিশ্চিত করেছেন, আনিসুজ্জামান করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

অধ্যাপক আনিসুজ্জামানের পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, চিকিৎসকরা রাতে তার শরীর থেকে করোনা পরীক্ষার নমুনা সংগ্রহ করেন। এতে তার করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। রাতে লাশ মর্গে থাকবে, সকালে পরিবারকে বুঝিয়ে দেয়া হবে। করোনা পজেটিভ হওয়ায় তাঁর লাশ বাংলা একাডেমিতে নেয়াসহ অন্যান্য কর্মসূচিও বাতিল করা হয়েছে।

আনিসুজ্জামানের ছেলে আনন্দ জামানও জানান, “আজ সকালে আব্বার নমুনা নেওয়া হয়। বিকালে মৃত্যুর পর আবারও নমুনা নেওয়া হয়। একটু আগে জানতে পারলাম, রেজাল্ট পজিটিভ এসেছে।”

প্রাথমিকভাবে রাজধানীর আজিমপুরে অধ্যাপক আনিসুজ্জামানের বাবার কবরের পাশে তাকে দাফনের সিদ্ধান্ত হলেও তা পরিবর্তিত হতে পারে বলে জানানো হয় পরিবারের পক্ষ থেকে।

রক্তে সংক্রমণের সঙ্গে পূর্বের নানা জটিলতা নিয়ে গত ২৭ এপ্রিল ৮৩ বছর বয়সী এই অধ্যাপককে রাজধানীর ইউনিভার্সেল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সেখানে শারীরিক অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় গত ৯ মে জাতীয় অধ্যাপক আনিসুজ্জামানকে সিএমএইচ এ ভর্তি করা হয়।

সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের করোনারি কেয়ার ইউনিটের প্রধান কর্নেল সৈয়দা আলেয়া সুলতানার নেতৃত্বে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারদের একটি দল তাকে সেবা দিচ্ছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সবাইকে ছেড়ে চলে গেলেন জাতীয় এই অধ্যাপক।

আরও পড়ুন-